নীরব যন্ত্রণা

হুমায়ূন কবীর
ঝুলতে থাকা ভাঙা হাতের মতো যন্ত্রণা
বহুদিন কাদায়নি তাকে।
ভালোই কাটছিলো সময় দু’হাতে সাতার কেটে সফেদ শাপলার তারা বনে ফুরফুরে পাতা হয়ে।
আবার দুঃখের কোকিল সহসা কুহু কুহু ডেকে ওঠে।
বেহালার করুন সুর অন্ধকার রাতের ভয়ংকর ভৌতিক ঝড় জীবনে তার নিয়ে আসে।
ভেসে যায় বাণের জলে এ কার নব বাসর ফুল
চিতার মালা হয়ে।
নির্ঘুম রাত তার কাটে একাকি বিছানার কুলহীন পারাবারে।
জল আর আসে না, ঝড় আর আসে না। মিটেগেছে সব স্বাদের দেনা।
ক্ষমাহীন আগুন সূর্যের তলে, দিগন্তলিন মরুর বুকে
চুষে গেছে তপ্ত বালুর শুষ্ক গ্রাসে টলটলে পানির মতো জীবনের সকল স্বপ্নেরা।
এখন বেঁচে আছে বুকে তার,
ঝুলতে থাকা ভাঙা হাতের মতো নীরব যন্ত্রণা।
হুমায়ূন কবীর
মানিকদিহি, সদর,যশোর।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here