‘হে প্রভু’ নামের যৌথ সংগীত এলবামটির আনুষ্ঠানিকভাবে মোড়ক উন্মোচন করা হয়েছে। ১১ অক্টোবর সোমবার লন্ডন বাংলা প্রেসক্লাব অফিসে এ উপলক্ষ্যে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

মিনারা মেঘনা উদ্দিন এর পরিচালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন টাওয়ার হ্যামলেটস্ কাউন্সিল এর স্পিকার কাউন্সিলর মোহাম্মদ আহবাব হোসেন, বিলেতের বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মুকিম আহমেদ, বাংলাদেশ ক্যাটেরেটস এসোসিয়েশন এর জেনারেল সেক্রেটারি মিটু চৌধুরী, কাউন্সিলর ভিক্টোরিয়া অবজে, দর্পন ম্যাগাজিনের সম্পাদক রহমত আলী, লন্ডন বাংলা প্রেসক্লাবের কার্য নির্বাহী সম্পাদক আব্দুল কাইয়ুম, জে ইউ এম নাজমুল হোসেন, ATN বাংলা ইউকে এর সাংবাদিক মোস্তাক বাবুল , স্মৃতি আজাদ, সাংবাদিক আহাদ চৌধুরী বাবু, এনাম চৌধুরী, তানিম আহমেদ সোহো।

বক্তরা বলেন, কমিউনিটির বিশিষ্টজনের সংগীতের প্রতি অনুরক্ত আর ভক্তি ছিল উমর ফারুক এর মধ্যে। স্কুল জীবনে প্রথম ধরা পড়ে তার সংগীত প্রতিভা। ক্লাস ৭ থেকেই স্কুল এর সব প্রতিযোগিতায় সংগীত এ প্রথম স্থান অধিকার করতে থাকেন। যোগ হয় অসংখ্য পুরস্কার। স্কুল এর গন্ডি পেরিয়ে, কলেজে , কলেজে থেকে বিশ্ব বিদ্যালয়ে ও সমান ভাবে সংগীতে প্রথম ও দ্বিতীয় স্থান অধিকার করতে থাকেন। ছিলেন ক্লাস এর প্রথম ছাত্রও । অর্থনীতির ছাত্র হয়েও তার মধ্যে বিকশিত হয়ে ওঠে সংগীত, আর সংস্কৃতির অবকাঠমো। কর্ম জীবন শুরু হয় টেলিভিশন এ কাজের মধ্য দিয়ে। সংগীত তার মধ্যে বাসা বেঁধে থাকলেও চর্চা করা বা কোনো উস্তাদ এর কাছে নেয়া হয়নি কোনো সংগীত শিক্ষা। আল্লাহ প্রদত্ত কণ্ঠ দিয়েই চলতে থাকে সংগীত জীবন। বিভিন্ন টেলিভিশনে করেছেন ইসলামিক ও নজরুলের অনেক গান। উমর ফারুক শুধু গানের মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকেনি, অনেক গুন আর প্রতিভায় বিকশিত এক মানুষ তিনি। কখনো গায়ক, কখনো প্রেজেন্টার, গ্রাফিক ডিজাইনার, ভিডিও এডিটর, ক্যামেরাম্যান, ওয়েব ডিজাইনারসহ আরো অনেক গুনের অধিকারী উমর ফারুক।

এলবামে সুর ও সংগীত করেছেন লন্ডনে বসবাসরত বিশিষ্ট সংগীত পরিচালক রাজা কাশেফ, ভিডিও নির্দেশনায় ছিলেন বাংলাদেশের সম্রাট আজাদ। গানটি ASB Channel (আমার সোনার বাংলা চ্যানেল) এ দেখা যাবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here